1. admin@narayanganjtimes.com : ntimes :
  2. ahmedshawon75@gmail.com : ahmed shawon : ahmed shawon
শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৪:৪২ অপরাহ্ন

মেয়র আইভীর বিরুদ্ধে ওলামাদের ফতোয়া

নারায়ণগঞ্জ টাইমস :
  • শুক্রবার, ১২ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ১৫৪
মেয়র আইভীর বিরুদ্ধে ওলামাদের ফতোয়া

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াত আইভীর বিরুদ্ধে মসজিদ সমাবেশ করেছে নারায়ণগঞ্জ ওলামা পরিষদ। সমাবেশ থেকে মেয়র আইভীর বিরুদ্ধে ফতোয়া দেয়া হয়েছে।

 

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক মাসদাইর কবরস্থান হাফিজিয়া মাদরাসা বিলুপ্তি, চাষাঢ়া বাগে জান্নাত দাওরায়ে হাদিস পর্যন্ত মাদরাসায় নগ্ন হস্তক্ষেপ এবং নারায়ণগঞ্জ ওলামা পরিষদের সভাপতি মাওলানা আব্দুল আউয়ালের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের প্রতিবাদে এই সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

 

শুক্রবার (১২ ফেব্রুয়ারি) জুম্মার নামাজের পর শহরের চাষাড়ায় বাগে জান্নাত মসজিদের সামনে কয়েক হাজার মুসুল্লি ও শত শত আলেম-ওলামা এই সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন।

 

সমাবেশ থেকে সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেলিনা হায়াত আইভীর বিরুদ্ধে ফতোয়া দিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ ওলামা পরিষদের প্রায় অর্ধশত ওলামা। তারা এসময় শহরের কয়েকটি মসজিদ ও মাদ্রাসা দখল ও ভাঙ্গার প্রতিবাদ জানিয়ে মেয়র আইভীর বিরুদ্ধে কঠোর হুশিয়ারী দিয়েছেন।

 

মহানগর ওলামা পরিষদের সভপতি মাওলানা ফেরদাউসুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মাদানীনগর মাদ্রাসার মোহতামিম ও নারায়ণগঞ্জ হেফাজত ইসলামের সাধারণ সম্পাদক মুফতি বশীর উল্লাহ।
তিনি বলেন, ফতুল্লার মাসদাইর সিটি কবরস্তানের বহু পুরানো একটি মাদ্রাসা গত ২ বছর আগেই মেয়র আইভী উচ্ছেদ করে দিয়েছেন। কিন্ত কথা দিয়েও সেই মাদ্রাসা আজও করে দেয়া হয়নি। শহরের বাগে জান্নাত মসজিদ সংলগ্ন মাদ্রাসা উচ্ছেদে চিঠি দিয়েছেন, এমনকি মেয়র আইভী নিজে এসেই মাদ্রাসাটি উচ্ছেদে কঠোর ভাষায় তাগিদ দিয়েছেন। তিনি মসজিদটি ভেঙে সেখানে বহুতল শপিং কমপ্লেক্স ও মাদ্রাসা ভেঙে পার্ক করতে চাচ্ছেন। অথচ তিনি পাশের রামকৃষ্ণ মিশনে প্রায় অর্ধ কোটি টাকা দিয়ে প্রধান ফটক বানিয়ে দিচ্ছেন, মাজারের জন্য সিটি কর্পোরেশনের জায়গা ছেড়ে দিচ্ছেন। আবার মন্দিরের সম্পত্তি গ্রাস করতে চাচ্ছেন। মেয়র আইভী এসব দ্বৈত নীতি আমাদের হৃদয়ে রক্তরক্ষণ করছে।

 

এসময় উপস্থিত ওলামারা ফতোয়া চাইলে মুফতি বশীরউল্লাহ বলেন, ‘কিতাবের পরিস্কার নির্দেশনা মতে একজন মুসলমান হয়ে মেয়র আইভী মন্দিরে গিয়ে সিদুঁর এটে প্রতীমার সামনে কড়োজোরে নমস্কার করে ও মাজারে কপাল ঠেকিয়ে শিরিক করেছেন, ইসলামের বিধান ভঙ্গ করেছেন। তাই মাননীয় মেয়র আইভী এখন মুসলমানের কাতারে নেই, তিনি একজন মুশরিকের কাজ করেছেন। তিনি মুসলমান হিসেবে নিজেকে দাবী করতে পারেন না। তাঁর উচিত আল্লাহর কাছে ক্ষমা চেয়ে পুনরায় কালেমা পাঠ করা অথবা ঘোষণা দিতে হবে তিনি কোন ধর্মে থাকবেন’।

আরও পড়ুন :মেয়র আইভীকে যে হুশিয়ারী দিলেন ওলামা পরিষদ

সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, মাওলানা মাহমুদুল হাসান পাটোয়ারী, মুফতি কবির হোসাইন, মুফতি মাসুম বিল্লাহ, হয়রত মাওলানা কামাল উদ্দিন দায়েমী মুফতি রহমত উল্লাহ বুখারী, মুফতি আবুল কাশেম, মাওলানা মোস্তফা আল হাবিব,  মাওলানা মনোয়ার হোসাইন, মুফতি রুহুল আমীন প্রমুখ।

নিউজটি আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ বা ব্যবহার করা  সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.narayanganjtimes.com কর্তৃক সংরক্ষিত।
Customized By NewsSmart