1. admin@narayanganjtimes.com : ntimes :
  2. ahmedshawon75@gmail.com : ahmed shawon : ahmed shawon
বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০৪:৪৬ অপরাহ্ন

নারায়ণগঞ্জে নোংরা খেলা চলবে না : চন্দন শীল

নারায়ণগঞ্জ টাইমস :
  • রবিবার, ২৯ নভেম্বর, ২০২০
  • ১৬৫
নারায়ণগঞ্জে এ সমস্ত নোংরা খেলা চলবে না : চন্দন শীল

আওয়ামী লীগ নেতা চন্দন শীল বলেন, ক্ষোভের সাথে লক্ষ করছি একটা মহল বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য স্থাপনের বিরুদ্ধে উঠে পড়ে লেগেছে। তারা ধর্মের কথা বলে, তারা ইসলামের কথা বলে, অথচ তারা মহানবীকে (সা.) অবমাননা করে, কটুক্তি করে। এইসব ভন্ডদের প্রতিহত করতে হবে।

বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণের পক্ষে রবিবার (২৯ নভেম্বর) সকালে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে নারায়ণগঞ্জে স্বেচ্ছাসেবক লীগের সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘এইসব ভন্ডদের হুশিয়ার করে বলে দিতে চাই, শামীম ওসমানের নেতৃত্বে আমরা কিন্তু নারায়ণগঞ্জে স্বাধীনতা বিরোধী ভন্ড গোলাম আজমকে প্রবেশ করতে দেই নাই। যার জন্যে আমাদের উপর বোমা হামলা হয়েছিল। আমাদের অনেক ভাইদের হারিয়েছি আর এখনো সেই হামলার ছাপ আমরা বয়ে বেড়াচ্ছি। আমরা জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর আদর্শে রাজনীতি করি। আমরা হাসতে হাসতে বুকের তাজা রক্ত ঢেলে দিতে পারি কিন্তু কখনো বেঈমানি করতে পারি না। এই রক্ত কোনো স্বাধীনতা বিরোধী শক্তির সাথে আপোস করে না সরকারের কাছে। প্রশাসনের কাছে আমরা দাবি জানাই, যারা জাতির জনককে নিয়ে কটুক্তি করে,যারা জাতির জনকের ভাস্কর্য ভেঙ্গে ফেলার হুমকি দেয় তাদেরকে অনতিবিলম্বে গ্রেফতার করতে হবে।’

আরো পড়ুন:নারায়ণগঞ্জে ২৪ ঘন্টায় নমুনা সংগ্রহ ২৫৭ আক্রান্ত ১৯

চন্দন শীল আরও বলেন, নারায়ণগঞ্জে এ সমস্ত নোংরা খেলা চলবে না। তারা যে খেলায় মেতেছে সেটা কোনো ধর্মের খেলা না। সজাগ থাকুন, সোচ্চার থাকুন। আমাদের স্বাধীনতা নিয়ে কাউকে কোনো ছিনিমিনি খেলতে দেয়া হবে না। যারা খেলতে চায় তাদেরকে বলে দিতে চাই, আপনারা আপনাদের পেয়ারা পাকিস্তানে চলে যান। এইসব ভন্ডদের ছাড় দেয়া হবে না, এদেরকে প্রতিহত করা হবে। যার নেতৃত্বে দেশ স্বাধীন হলো সেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে কটাক্ষ করলে ছাড় দেয়া হবে না। লড়াইয়ে আছি, লড়াইয়ে থাকবো। ঘরে ফিরবো বিজয়ী বেশে।

মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি জুয়েল হোসেনের সভাপতিত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের সহসভাপতি চন্দন শীল, রবিউল হোসেন, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি সাফায়েত আলম সানি, মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সম্পাদক রফিকুল ইসলাম জয়, সাংগঠনিক সম্পাদক রকি, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি হাজী জহির প্রমুখ।

সভাপতির বক্তব্যে জুয়েল হোসেন বলেন, ‘দেশ কারো একার নয়। লাখো রক্তের বিনিময়ে এই দেশ আমরা পেয়েছি। তাই এই দেশের প্রতি দায়বদ্ধতা সবারই আছে। যারা আজ ইসলামকে বিক্রি করছেন তারা এক সময় বলেছিল, আওয়ামী লীগ নাকি ক্ষমতায় আসলে এদেশ হিন্দু দেশে পরিণত হবে। মামুনুল হক, বাবুনগরী বলেছেন, বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য হলে নাকি ভেঙ্গে ফেলে দিবেন। আপনারা মাথায় টুপি দিয়া ইসলামকে বিক্রি করে খেয়েছেন। আল্লাহকে মানুন, মনে রাখবেন এক সময় সবাইকে চলে যেতে হবে। যেকোনো কিছুর বিনিময়ে বঙ্গবন্ধুর ভাষ্কর্য নির্মাণ করবোই। বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে বুকে ধারণ করে যেকোনো কিছুর মোকাবেলা করবোই। এই ধর্ম ব্যবসায়ীরা টাকার বিনিময়ে বাংলাদেশের সংস্কৃতিকে ধ্বংস করতে চাইছে।’

নিউজটি আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ বা ব্যবহার করা  সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব www.narayanganjtimes.com কর্তৃক সংরক্ষিত।
Customized By NewsSmart